Gondar 1

অথ গন্ডেরিরাম বাটপারিয়া কথা (১ম পর্ব)

৩বছরে ১০০ বিলিয়ন মার্কিন ডলার সম্পদ বৃদ্ধি হয়েছে এযুগের গন্ডেরিরাম, গৌতম আদানীর। ঠিক যেভাবে শুধু শেয়ারের ভেলকিবাজিতে গন্ডেরিরাম বাটপারিয়া বিপুল অর্থ কামিয়ে সরে পড়েছিল, তেমনই কাজে সিদ্ধহস্ত আদানী ভাইয়েরা। আর আদানী ভাইদের রকেট গতিতে উত্থান মোদী ভাইয়ের দাক্ষিণ্যেই।

Budget 2023

রক্তস্নাত জনবিরোধী বাজেট

ডানপন্থী পপুলিজম কর্তৃত্ববাদী এবং অগণতান্ত্রিক কাঠামোকে যেভাবে চালনা করছে তার পরিবর্তন বাধ্যতামূলক হয়ে পড়েছে। নাহলে সর্বগ্রাসী দেশপ্রেমের মিথ্যে মোড়কে ঢাকা, জনস্বার্থ বিরোধী লুটেরা-রা সাধারণ মানুষের শ্বাসরোধ করার উল্লাস থেকে বিরত হবে না।

আদানির শেয়ারের দাম পড়েছে ,তো আমার বাপের কী?

৪ ফেব্রুয়ারী ২০২৩ আমেরিকান ফিনান্সিয়াল ফরেনসিক রিসার্চ ফার্ম হিন্ডেনবার্গের রিপোর্টে চোখ বুলিয়ে কনফিডেন্টলি বলল আমার বন্ধু। নিন্দুকে বলে ভক্ত। কথা

adani part 2

দুনিয়ার তিন নম্বর ও লুটেরা পুঁজির কেরামতি (২য় পর্ব)

‘ক্রোনি ক্যাপিটালিজম’ শুধু একটি বিশেষ অর্থনীতি না, একটি বিশেষ ধরনের রাজনীতিও। আমরা তাকেই কর্পোরেট-কমিউনাল নেক্সাস (কর্পোরেট ও সাম্প্রদায়িক শক্তির আঁতাত) বলেছি।

পলিটব্যুরো'র বিবৃতি

কেন্দ্রীয় বাজেট ২০২৩-২৪ এমন এক সময়ে পেশ হয়েছে যখন ভারতের অর্থনীতি অতিমারীর কারণে গতি হারিয়ে ফেলেছে, ২ অতিমারী বছরে সর্বাধিক ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। অতিমারী পরবর্তীতে অর্থনীতি চাঙ্গা হতে গিয়ে বিশ্ব-অর্থনীতির গতিহীনতার ফলে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে, যে বিশ্ব-অর্থনীতি সম্ভবত এক মন্দার দিকে এগোচ্ছে। এই পরিস্থিতিতে দাঁড়িয়ে সাধারণ মানুষের ক্রয়ক্ষমতা বাড়ানো, কর্মসংস্থানের সুযোগ বৃদ্ধি, গৃহস্থের চাহিদা পূরণের মত কেন্দ্রীয় বিষয়গুলি এই বাজেটে উল্লেখ হওয়া উচিৎ ছিল।

বাজেট:২০২৩-২৪: রেগাসহ বিভিন্ন কেন্দ্রীয় প্রকল্পে বাজেট ছাঁটাই

একশো দিনের কাজের প্রকল্প(রেগা) বাজেট বরাদ্দ করা হয়েছে ৬০,০০০কোটি টাকা। যা গতবছরে ছিল ৭৩,০০০কোটি টাকা। তার আগের বছর, অর্থাৎ ২০২১-২২-এ এই প্রকল্পে বাজেট বরাদ্দ ছিল ৯৮,৪৬৮কোটি টাকা। অর্থাৎ গত বছরের তুলনায় এবার রেগায় বাজেট বরাদ্দ কমানো হয়েছে ১৭.৮০%। ২০২১-২২-র তুলনায় তা আরও বেশি — ৩৯.০৬%!

দুনিয়ার তিন নম্বর ও লুটেরা পুঁজির কেরামতি (১ম পর্ব)

পুঁজির এসবে কোনও দায় নেই- এটুকু নিশ্চিত করতেই তারা আমাদের দেশে সাম্প্রদায়িক শক্তির পিছনে সমর্থন দিয়েছে। সাম্প্রদায়িক ঘৃণা ছাড়া যাদের আর কিছুই দেওয়ার নেই- তারাও আর কোথাও ঠাঁই না পেয়ে এমন লুটেরা পুঁজির ধামধরা হয়েছে।